logo
photo

সিরাজগঞ্জের তিনটি উপজেলায় হাজার হাজার একর জমি অনাবাদি

৩০ জুলাই, ২০২০   |   news71.tv

সিরাজগঞ্জের তিনটি উপজেলায় হাজার হাজার একর জমি অনাবাদি

সিরাজগঞ্জ থেকে মোঃ ফারুক আহমেদঃ
 পানি নিস্কাশনে ব্যবস্থা না  রেখে অপরিকল্পিতভাবে বাঁধ নির্মাণ, পুকুর খনন ও দীর্ঘদিন যাবত খাল ও পানি প্রবাহের পথে সংস্কারের অভাবে জলাবদ্ধতার শিকার সিরাজগঞ্জের তিনটি উপজেলাসহ সলঙ্গা থানার রামকৃষ্ণপুর ইউনিয়নে আগরপুরসহ আমশড়া, লক্ষিপুর, বোয়ালিয়া ও শোলাপাড়া গ্রামের প্রায় দুইশত হেক্টর জমি রোপা আমন মৌসুমের চাষাবাদ অনুপোযোগী হয়ে পড়ে আছে। ফলে রোপা আমন মৌসুমে ফি -বছর প্রায় ১২শ' মেট্রিক টান ধান উৎপাদন ব্যাহত হচ্ছে।  ভুক্তি ভূগি কয়েক জন কৃষক বলেন, এক সময় রায়গঞ্জ, তাড়াশ ও উল্লাপাড়া উপজেলার উপর দিয়ে করতোয়া নদী খাল বয়ে চলবিলে পানি পড়ত।  আজ সব খালের মুখ বন্ধু করে এলাকার প্রভাশালি জায়গা জায়গা বাঁধ দিয়ে পুকুর তৈরি করে খালের  পানি প্রবাহ বন্ধ  হয়ে গেয়েছে। সেই থেকে অদ্যাবদি উজান থেকে পানি আসলেও  নিস্কাশন  না হওয়ার কারণে ৩টি ইউসিয়নের মধ্যে আমশড়া, লক্ষিপুর ও আগুপুর গ্রামগুলির প্রায় ২শ', হেক্টর দুই ফসলি জমি গত ২০ বছর ধরে এক ফসলিতে পরিণত হয়েছে। জমিগুলোতে শুধু বছরে ইরিবোরো মৌসুম ছাড়া আর কোন ফসল ফলানো যায়না। আমশড়া গ্রামের কৃষক আব্দুল আজিজ খুলু বলেন, জমিতে বছরে মাত্র একটি ফসল।  তার উপরে লাভজনক রোপা আমন না করতে পেরে আমরা কয়েক ইউনিয়নের মানুষ অর্থনৈতিক ভাবে ব্যাপক ক্ষতির মধ্যে আছি। স্থানীয় কৃষি বিভাগ এবং বিএডিসির পক্ষ থেকে অনাবাদি এ সব জমি সেচ সুবিধার আওতায় আনার জন্য বারবার সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষকে জানানোর পরও সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কতৃপক্ষ এ ব্যাপারে কোন ব্যবস্থা গ্রহণ না করায় উপজেলাবাসী ২৫ বছর প্রায়  বাড়তি ১২ হাজার ২শ'মেট্রিক টন খাদ্য উৎপাদন থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। 
অপর দিকে গত কয়েক বছর ধরে ধান কাটা-মাড়াই মওসুমে কৃষক ধানের ন্যায্য মূল্য বঞ্চিত হয়ে, আবাদ করে উৎপাদন খরচ না ওঠায়, অনেক কৃষক ধানের আবাদ ছেড়ে বিকল্প আবাদের চিন্তাভাবনা করে ছিল এই বছর ধানে ন্যায্য মূল্য পওয়ায় ধানের আবাদে আগ্রহ বেড়েছে বলে কৃষকদের সাথে আলাপ করে জানা গেছে।
রায়গঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড ইমরুল হাসান (ইমন) তালুকদার জানান, বর্তমান কৃষি বান্ধব সরকার ইতিমধ্যে খাল খননের ব্যবস্থা নিয়েছেন। আশা করছি তিনটি উপজেলার উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া খালটি খনন করা হবে। 
 
বিশিষ্ট রাজনৈতিক নেতা সাইফুল ইসলাম, আব্দুর রাজ্জাক,  জানান, ৩টি উপজেলায় আমশড়া, আগুরপুর,  লক্ষিপুর বোয়ালিয়া ও শোলাপাড়া গ্রামের জমি গুলোতে পানি নিস্কাশনের সু- ব্যবস্থা  না থাকায় আমন মৌসুমে প্রায় ২শ, একর জমি অনাবাদি পড়ে থাকছে। 
ফলে তাদের ভরসা এক মাত্র ইরিবোরো ধানের আবাদ। এতে যে শুধু তারা নিজেরাই ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে তা নয়, তিনটি উপজেলার সার্বিক খাদ্য উৎপাদন কার্যক্রম ও মারাত্মকভাবে ব্যাহত হচ্ছে।
এ দিকে গত আমন মৌসুমে তিনটি উপজেলায় ১২ হাজার ১০ হেক্টর জমিতে আমন চাষের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছিল বলে উপজেলা কৃষি অফিসারের সাথে যোগাযোগ করে জানা গেছে। 
তিনি ও স্বীকার করেন যে, যদি অনাবাদি ওই ২ শ'  হেক্টর জমি নিস্কাশনের  আওতায় আনা যেত এবং আমন ধানের আবাদ করা যেতো তবে আরো কমপক্ষে ৬ হাজার মেট্রিক টন অতিরিক্ত খাদ্য উৎপাদন করা সম্ভব হতো। 
আর এ কারণেই মূলত. জমিগুলো অনাবাদি পড়ে থাকছে। 
বর্তমান ইউপি সদস্য এনছাব আলী জানান, ভারতের মেঘালয় থেকে নেমে আসা মহারশী একটি খর স্রোতা পাহাড়ী নদীর ঢাল। 
প্রতিবছর বর্ষায় পাহড়ি ঢলের বালুতে মহারশী নদীর তলদেশ ভরাট হচ্ছে। আর তলদেশের উচ্চতা বেড়ে যাওয়ায় তাছাড়া প্রভাবশালীরা খালের মুখ বন্ধ করে পুকুর দিয়ে মাছ চাষ করায় খালের পানি ধারণ ক্ষমতা শূন্যের কোটায় নেমে এসেছে।  তাই সামান্য বৃষ্টির পানি হলে পানি বের না হতে পেরে জলাবদ্ধ হয়ে জমিই মনে হয় বিশাল সাগর।  
এলাকার প্রবিণ লোকজন জানান গত ২/ যুগ  আগেও তিনটি উপজেলার উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া খালের গভীরতা ছিল অনেক। কৃষকরা জানান, করতোয় নদীর খালর দু’পাড়ের কয়েক হাজার একর জমির ফসল উৎপাদন মহারশী নদীর পানি সেচের ওপর নির্ভরশীল। কিন্তুু পুকুর খনন, করার কারণে খালের মুখ বন্ধ হয়ে যাওয়া খালটি এখন প্রায় মৃত খালে পরিনত করে ফেলায় পানির অভাবে ফি-বছর মারাত্মকভাবে ব্যাহত হচ্ছে ইরি-বোরো চাষাবাদ।
 
পানির নিস্কাশনের অভাবে রায়গঞ্জ,তাড়াশ ও উল্লাপাড়া  উপজেলারই ১৫ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে বিপুল পরিমাণ জমি অনাবাদি হয়ে পড়ছে। নদীর নাব্যতা বাড়ানোর ব্যাপারে বা রক্ষাকল্পে পানি উন্নয়ন বোর্ডের নেই কোন মাথা ব্যথা। ফলে ক্রমেই ক্ষোভ বাড়ছে সাধারণ কৃষকদের মাঝে।


  সারাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত
photo


নামাজের সময়সূচি

শনিবার, ১৫ আগস্ট, ২০২০
ফজর ৪:২৬
জোহর ১১:৫৬
আসর ৪:৪১
মাগরিব ৬:০৯
ইশা ৭:২০
সূর্যাস্ত : ৬:০৯সূর্যোদয় : ৫:৪৩

photo

শিরোনামঃ

♦ পশ্চিমবঙ্গে করোনায় মৃতদের সৎকার নিয়ে নানা অভিযোগে মামলা ♦ পশ্চিমবঙ্গে করোনায় মৃতদের সৎকার নিয়ে নানা অভিযোগে মামলা ♦ রাজধানীর পুরানা পল্টনে একটি জালনোট কারখানায় ৫৭ লাখ টাকার জালনোট ♦ দেবীগঞ্জে মৌন শোক অবস্থান কর্মসূচি ♦ ঠাকুরগাঁওয়ে বঙ্গবন্ধুর ৪৫ তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে পূজা উদযাপন পরিষদের মৌন শোক অবস্থান ♦ মুন্সীগঞ্জের চরকেওয়ার পূর্ব শত্রুতার জেরে বাবা-ছেলের হামলায় আহত আয়নাল ♦ পঞ্চসার ইউনিয়নের প্রতিটি ওয়ার্ডে ফলজ,বনজ ও ঔষধি গাছ বিতরণ ♦ অতিরিক্ত আইজিপি মাহবুব হোসেনের খাদ্য সহায়তা কার্যক্রম অনুষ্ঠিত ♦ মুন্সীগঞ্জের পর্যটনের উন্নয়ন- সম্ভাবনা বিষয়ক ভার্চুয়াল কর্মশালা ♦ সলঙ্গায় আখের রস বিক্রির অর্থে সংসার চলে আবুল কাশেম আলীর